× প্রচ্ছদ পাবনা-৪ উপনির্বাচন ঈশ্বরদী পাবনা জাতীয় রাজনীতি আন্তর্জাতিক শিক্ষাজ্ঞন বিনোদন খেলাধূলা বিজ্ঞান-প্রযুক্তি নির্বাচন কলাম ছবি ভিডিও রূপপুর এনপিপি
Smiley face করোনা ঈশ্বরদী পাবনা বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক খেলা প্রযুক্তি বিনোদন শিক্ষা



ঈশ্বরদী হাসপাতালে করোনার নমুনা সংগ্রহ আবারো বন্ধ

ইতিহাস টুয়েন্টিফোর প্রতিবেদকঃ  ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনার নমুনা সংগ্রহ আবারো বন্ধ হয়ে গেছে।  গত এক সপ্তাহে ঈশ্বরদীতে সংগৃহীত ছয় শতাধিক নমুনা টেষ্টের জন্য এখনও রাজশাহী বা ঢাকাতে পাঠানো সম্ভব হয়নি। সংগৃহীত নমুনা এখনও হাসপাতালেই রয়ে গেছে। 

নমুনা সংগ্রহের জন্য সরকারি এ্যাম্পুল ও স্টিক এখনও আসেনি। রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের বিভিন্ন কোম্পানী কর্তৃক সরবরাহকৃত এ্যাম্পুল ও স্টিক দিয়েই নমুনা সংগ্রহ করা হচ্ছিল। ঈশ্বরদীতে করোনার নমুনা পরীা ও নমুনা সংগ্রহ সংক্রান্ত এসব সমস্যার কথা জানিয়েছেন ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আসমা খান।

ডাঃ আসমা খান জানান, রাজশাহী ও ঢাকা ল্যাবে করোনা পরীা অতিরিক্ত চাপের কারণে পরীার বিলম্ব হচ্ছে। তারা পূর্বেরগুলো পরীা শেষ না করে নতুন নমুনা নিচ্ছে না। এছাড়াও পরীার কীট সংকটও হতে পারে।  এই কারণে গত ২৫শে জুন (বৃহস্পতিবার) পর্যন্ত এক সপ্তাহে ছয় শতাধিক সংগৃহীত নমুনা পরীার জন্য পাঠানো সম্ভব হয়নি। 
তিনি আরো জানান, ঈশ্বরদী হাসপাতালে বরাদ্দকৃত সরকারি এ্যাম্পুল ও স্টিক গত ১১ই জুন শেষ হলেও এখন পর্যন্ত বরাদ্দ পাওয়া যায়নি। এসময় নমুনা সংগ্রহ ৬ দিন বন্ধ থাকার পর ১৭ই জুন হতে বিশেষ ব্যবস্থায় নমুনা সংগ্রহ শুরু হয়। এই অবস্থায় রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের শ্রমিক কর্মচারীদের নমুনা পরীার জন্য প্রকল্পের বিভিন্ন কোম্পানী কর্তৃক সরবরাহকৃত এ্যাম্পুল ও স্টিক দিয়েই এতদিন নমুনা সংগ্রহ করা হচ্ছিল। তাদের সরবরাহকৃত কিছু অতিরিক্তি এ্যাম্পুল ও স্টিক দিয়ে স্থানীয়সহ বেশী উপসর্গ রোগীদের অল্প-বিস্তর নমুনা সংগ্রহের কাজ চলছিল।  কিন্তু সংগৃহীত নমুনা পরীার জন্য পাঠাতে না পারার কারণে নতুন করে আর কোন নমুনা সংগ্রহ করা সম্ভব নয় বলে তিনি জানিয়েছেন।

উত্তরবঙ্গের প্রবেশদ্বার হিসেবে স্বীকৃত ঈশ্বরদী দেশের উন্নত একটি উপজেলা শহর। এখানকার প্রায় সাড়ে ৩ লাখ জনগোষ্টি অধ্যুষিত প্রথম শ্রেণীর ঈশ্বরদী পৌরসভা ছাড়াও এখানে  রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ, ইপিজেড, পশ্চিম রেলের পাকশী বিভাগীয় সদর দপ্তর এবং ভারী-মাঝারিও ুদ্র শিল্প প্রতিষ্ঠান রয়েছে। বিদেশী নাগরিকসহ বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে বহিরাগত শ্রমিক কর্মচারী ও কর্মকর্তা মিলিয়ে প্রায় অর্ধলাধিক মানুষ ঈশ্বরদীতে কর্মরত রয়েছে। সরকারিভাবে প্রাপ্ত এ্যাম্পুল ও স্টিক দিয়ে মাত্র ৭৩৪ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়।

হাসপাতাল সূত্র আরো জানায়, ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে হতে এযাবত প্রায় ১,৮০০ জনের নমুনা সংগ্রহ হয়েছে। এরমধ্যে ১,১৭৫ জনের নমুনা পরীার জন্য পাঠানো হয়েছে। প্রাপ্ত রিপোর্টে ২৪ জনের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে। আরো ছয় শতাধিক নমুনা সংগ্রহে রয়েছে। যা এখনও পাঠানো সম্ভব হয়নি।

কোন মন্তব্য নেই