× প্রচ্ছদ পাবনা-৪ উপনির্বাচন ঈশ্বরদী পাবনা জাতীয় রাজনীতি আন্তর্জাতিক শিক্ষাজ্ঞন বিনোদন খেলাধূলা বিজ্ঞান-প্রযুক্তি নির্বাচন কলাম ছবি ভিডিও রূপপুর এনপিপি
Smiley face করোনা ঈশ্বরদী পাবনা বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক খেলা প্রযুক্তি বিনোদন শিক্ষা



ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধা-জনতার সমাবেশে বিএনপি নেতা হাবিবুর রহমান হাবিবকে ধিক্কার ও অবাঞ্ছিত ঘোষনা

 
ইতিহাস টুয়েন্টিফোর প্রতিবেদকঃ

মহান মুক্তিযুদ্ধের ঈশ্বরদী অঞ্চলের মুজিব বাহিনীর প্রধান, পাবনা-৪ আসনের নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য আলহাজ্ব নুরুজ্জামান বিশ্বাসের সঙ্গে টেলিভিশন টকশোতে বিএনপির প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিবের শিষ্টাচার বহির্ভূত-ঔদ্ধত্যপূর্ণ, অসৌজন্যমূলক ও অপমানজনক আচরণ করেছেন। হাবিবের অসৌজন্যমূলক আচরণের তীব্র নিন্দা ও ধিক্কার জানিয়ে ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধা-জনতা মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছেন।


বৃহস্পতিবার (১ সেপ্টেম্বর)  সকাল ১০টায় ঈশ্বরদী মুক্তিযোদ্ধা সংসদের উদ্যোগে আয়োজিত শহরের স্টেশন রোডে এই  মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।



ঈশ্বরদী মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার ও উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি গোলাম মোস্তফা চান্না মন্ডলের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন পাবনা-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও পাবনা জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পাঞ্চাব আলী বিশ্বাস, ঈশ্বরদী উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আলহাজ্ব নায়েব আলী বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক মকলেছুর রহমান মিন্টু, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মেয়র আবুল কালাম আজাদ মিন্টু, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইছাহক আলী মালিথা, উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম খান, ভাইস চেয়ারম্যান আতিয়া ফেরদৌস কাকলী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মোহাম্মদ রশিদুল্লাহ, ঈশ্বরদী মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার আব্দুল খালেক, পাকশী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা হাবিবুল ইসলাম হব্বুল, বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজ উদ্দিন বিশ্বাস, বীরমুক্তিযোদ্ধা আবু তাহের বকুল, বীরমুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম রফিক, বীরমুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার হোসেন রুমি, ঈশ্বরদী প্রেসক্লাবের সভাপতি স্বপন কুমার কুন্ডু, ঈশ্বরদী শিল্প ও বণিক সমিতির সভাপতি শফিকুল ইসলাম বাচ্চু, পাবনা জেলা পরিষদের সদস্য শফিউল আলম বিশ্বাস, সাইফুল আলম বাবু মন্ডল,   পৌর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালেক, উপজেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মীর জহুরুল হক পুনো, উপজেলা কৃষকলীগের যুগ্ম আহবায়ক মুরাদ মালিথা, জাসদ পাবনা জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন,  ঈশ্বরদী আঞ্চলিক শ্রমিকলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর হোসেন, সাঁড়া ইউপি চেয়ারম্যান এমদাদুল হক রানা সরদার, ইউপি চেয়ারম্যান বকুল সরদার, সাহাপুর ইউপি চেয়ারম্যান মতলেবুর রহমান মিনহাজ, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড ঈশ্বরদী শাখার আহবায়ক আব্দুল রহমান মিলন প্রমূখ নেতৃবৃন্দ। 


এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন যুবলীগ নেতা দোলন বিশ্বাস, মোশাররফ হোসেন নয়ন, তুষার মন্ডল, সোহেল বিশ্বাস, শরীফুল ইসলাম প্রমূখ নেতৃবৃন্দ।

 

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা হাবিবুর রহমান হাবিবকে  ঈশ্বরদীতে অবাঞ্ছিত ঘোষনা করেন এবং নিঃশর্তভাবে নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য আলহাজ্ব নুরুজ্জামান বিশ্বাসের নিকট ক্ষমা প্রার্থনার দাবি জানান। হাবিব ক্ষমা না চাইলে ঈশ্বরদীতে হাবিবকে কোন রাজনৈতিক কর্মকান্ড করতে দেয়া হবে না বলেও বক্তারা তাঁকে সর্তক করেন।  

  

বক্তারা আরো বলেন, হাবিব একজন মানসিক ভারসাম্যহীন বিকৃত মানসিকতার মানুষ। তিনি শিষ্টাচার বহির্ভূতভাবে নুরুজ্জামান বিশ্বাসকে উদ্দেশ্যে করে থুতু নিক্ষেপ করেছেন এটি কোন সুস্থ মানুষ করতে পারে না। তাই একজন মানসিক ভারসাম্য মানুষের সুস্থ না হওয়া পযন্ত রাজনীতি করার অধিকার নেই। পরিশেষে বক্তারা, ঈশ্বরদীর সর্বস্তরের মানুষকে হাবিবে প্রত্যাখান করার দাবি জানিয়ে ধিক্কার ও নিন্দা প্রকাশ করেন।

প্রতিবাদ সমাবেশে শেষে যুবলীগের নেতাকর্মীরা হাবিবুর রহমান হাবিবের কুশপুত্তলিকা দাহ করেন। এসময় যুবলীগ নেতাকর্মীরা হাবিবকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে বিভিন্ন শ্লোগান দেন।     

 উল্লেখ্য, ২৬ সেপ্টেম্বর  পাবনা-৪ আসনের উপনির্বাচনের পর রাতে চ্যানেল আইয়ের সরাসরি 'টু দ্য পয়েন্ট' অনুষ্ঠানে নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুজ্জামান বিশ্বাস ও বিএনপির প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব মুখোমুখি হন। সেই অনুষ্ঠান চলাকালে নুরুজ্জামান বিশ্বাসকে উদ্দেশ্যে করে হাবিব  'থুতু নিক্ষেপ' করেন। এ ঘটনার প্রতিবাদে নানা কর্মসূচী পালন করছে আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন সংগঠন।   

কোন মন্তব্য নেই