ঈশ্বরদীর সবশেষ নিউজ । ইতিহাস টুয়েন্টিফোর
ঢাকাবৃহস্পতিবার , ২৬ মে ২০২২

বাংলাদেশের হতাশার সেশন, লিড বাড়াচ্ছে শ্রীলঙ্কা

বিশেষ প্রতিবেদক
মে ২৬, ২০২২ ৩:১০ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ঢাকা টেস্টের প্রথম ইনিংসে ২৪ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে বাংলাদেশ দল। ষষ্ঠ উইকেটে সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন মুশফিকুর রহিম আর লিটন দাস। মুশফিক-লিটনের দেখানো পথ ধরেই হাঁটছেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস আর দীনেশ চান্দিমাল। ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে দলকে বিপদমুক্ত করে মুশফিক-লিটন দুইজনেই যেমন শতক তুলে নেন, একই রাস্তায় চলে সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন ম্যাথিউস-চান্দিমাল।

বাংলাদেশের ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে এসেছিল ২৭২ রান। শ্রীলঙ্কার ষষ্ঠ উইকেট পার্টনারশিপে এখন পর্যন্ত ১৯২ রান যোগ করেছেন ম্যাথিউস-চান্দিমাল। দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে স্বাগতিক বাংলাদেশ দলকে হতাশার সাগরে ভাসিয়ে লিড বাড়াচ্ছেন দুইজন। বৃহস্পতিবার চতুর্থ দিনের দ্বিতীয় সেশনের খেলা শেষে ৫ উইকেট হারানো লঙ্কানদের সংগ্রহ ৪৫৯ রান। যেখানে সফরকারীরা ৯৪ রানের লিড পেয়েছে। চা বিরতি থেকে ফিরে ম্যাথিউস ১১৮ এবং চান্দিমাল ১১৯ রানে তৃতীয় সেশন শুরু করবেন।

হতাশার সেশনে বাংলাদেশের হতাশা আরও বাড়িয়ে দিয়েছে ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম (ডিআরএস)। প্রথম সেশনের মতো প্রতিপক্ষ শিবির আবার রিভিউ নেওয়ায় দ্বিতীয় সেশনেও উইকেট বঞ্চিত থাকতে হয়েছে অধিনায়ক মুমিনুল হকের দলকে। এই সেশনে ম্যাথিউসকে সেঞ্চুরির আগে-পরে ফেরাতে পারত স্বাগতিকরা। তবে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে দুইবার বেঁচে যান এই ডানহাতি।

প্রথমবার মধ্যাহ্নভোজের পর দ্বিতীয় ওভারে পেসার খালেদ আহমেদের বলে কট বিহাইন্ডের আবেদনে আঙুলও তুলে দেন আম্পায়ার। কিন্তু রিভিউ নিয়ে বেঁচে যান ৯৪ রানে খেলতে থাকা ম্যাথিউস। অফ স্টাম্পের বাইরে পড়া বলের বাড়তি বাউন্সে পরাস্ত হয়েছিলেন তিনি। ডিফেন্স করার চেষ্টায় ব্যাটে খেলতে পারেননি। ব্যাটের গা ঘেঁষে কিপারের গ্লাভসে বল জমা পড়লে জোরালো আবেদন করেন বাংলাদেশের সবাই। রিপ্লেতে দেখা যায়, বল লাগেনি ব্যাটে।

দ্বিতীয়বার ম্যাথিউস বাঁচেন যখন ১০৫ রানে ব্যাট করছিলেন তিনি। এবার বোলিংয়ে ছিলে অফ স্পিনার মোসাদ্দেক হোসেন। এবার তার অফ স্টাম্প লাইনে পড়া বল সুইপ করেন ম্যাথিউস। বল ব্যাটের গা ঘেঁষে প্যাডে আঘাত করলে আবেদন করেন বাংলাদেশের ফিল্ডাররা। তাতে আঙুলও তুলে দেন আম্পায়ার। সঙ্গে সঙ্গে রিভিউ নেন ম্যাথিউস। রিপ্লেতে দেখা যায়, বল ব্যাটে স্পর্শ করে লেগেছে প্যাডে।

ম্যাথিউসকে দুইবার ফেরানোর চেষ্টায় ব্যর্থ বাংলাদেশ চান্দিমালকে ফেরাতে একবার নিজেরা রিভিউ নেয়। তবে সেই চ্যালেঞ্জও কাজে লাগেনি। খালেদের ফুল লেংথ বলটি আঘাত হাতে চান্দিমালের প্যাডে। বাংলাদেশের আবেদনে সাড়া দেননি আম্পায়ার। খালি চোখেই অনেকটা পরিষ্কার বুঝা যাচ্ছিল, মিডল স্টাম্পে পড়া বল বেরিয়ে যাবে লেগ স্টাম্প দিয়ে। কিন্তু বাংলাদেশ অধিনায়ক তবুও নিলেন রিভিউ। ফলাফল যা হওয়ার, আরেকটা রিভিউ অপচয়।

৫ উইকেটে ৩৬৯ রান নিয়ে মধ্যাহ্নভোজের বিরতি কাটিয়ে ফেরা শ্রীলঙ্কা পরে কোনো উইকেট না হারিয়ে ৪৫৯ রানে দ্বিতীয় সেশনের খেলা শেষ করেছে। ম্যাথিউস ৯৩ এবং চান্দিমাল ৬১ রানে ব্যাট করতে নেমে দুইজনই সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন। বাংলাদেশের বিপক্ষে এই সিরিজের আগে একটি সেঞ্চুরিও ছিল না অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউসের। চলতি সফরে সেই অপূর্ণতা তো ঘোচালেনই, অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান সেঞ্চুরি করলেন টানা দুই ম্যাচেই।

একই পথে হেঁটেছেন চান্দিমাল। ১৮১ বলে ক্যারিয়ারের দ্বাদশ সেঞ্চুরি স্পর্শ করেন তিনি। সেঞ্চুরির পথে ৯ চারের সঙ্গে মেরেছেন ১টি ছক্কা। ৩২ ইনিংস আর প্রায় ৪ বছর পর এই শতকের দেখা পেলেন তিনি। সবশেষ ২০১৮ সালের জুনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্টে তিন অঙ্ক ছুঁয়েছিলেন তিনি। এই নিয়ে ১২ সেঞ্চুরির ৫টি-ই তিনি করলেন বাংলাদেশের বিপক্ষে।

error: Please Stop!!You can not copy this content becuase this site content is under protection. Thank You Itihas24 Developer Team
AllEscort